মোবাইল প্রযুক্তির মাধ্যমে
মরিচের ন্যায্য মূল্য পাচ্ছে কৃষক

মোবাইল প্রযুক্তির মাধ্যমে<br>মরিচের ন্যায্য মূল্য পাচ্ছে কৃষক

জামালগঞ্জ প্রতিনিধি: সুনামগঞ্জ জেলার জামালগঞ্জ উপজেলায় মোবাইল প্রযুক্তি ব্যবহারের মাধ্যমে প্রতিদিন কমপক্ষে ৫ লাখ টাকার মরিচ যাচ্ছে ঢাকা ও সিলেটে। ফলন ভালো ও ন্যায্য মূল্য পাওয়ায় কৃষকের মুখে আনন্দের হাসি ফুটে উঠছে। মরিচ বিক্রি করে প্রতি বিঘায় ১ থেকে দেড় লাখ টাকা লাভবান হচ্ছে কৃষক।
মরিচ চাষীরা জানান, এখন আর চিন্তা নেই। মোবাইল করলেই ঢাকা ও সিলেট থেকে পাইকাররা সরাসরি আমাদের ক্ষেতে চলে আসছেন। বাজারে গিয়ে বিক্রিতে আরৎদারের টোল কিংবা যাতায়াত খরচ লাগছে না।
তারা আরও জানান, ১ বিঘা জমিতে খরচ হয়েছে ৩০ থেকে ৩৫ হাজার টাকা। বিক্রি হয়েছে ১ থেকে দেড় লাখ টাকা। ১০ বিঘা ধান চাষ করে যে লাভ হতো ১ বিঘা মরিচ চাষে সেই লাভ হচ্ছে।
উপজেলার আলীপুর, চাঁনপুর, শরীফপুর, মমিনপুর গিয়ে দেখা যায়, পাইকাররা কৃষকের জমি থেকে সরাসরি মরিচ কিনে নৌকায় কিংবা ট্রাকে করে ঢাকা ও সিলেটে নিয়ে যাচ্ছে।
আলীপুর গ্রামের কৃষক মহারাজ মিয়া, আবুল কাসেম, সালাম উদ্দিন বলেন, ক্ষেত থেকে তুলেই ন্যায্য মূল্যে সরাসরি বিক্রি করে নগদ টাকা নিয়ে ঘরে যাচ্ছি। ব্যবসায়ীদের সাথে মোবাইল প্রযুক্তির মাধ্যমে জমি থেকে টাটকা মরিচ কিনে ঢাকা ও সিলেটের ব্যবসায়ীদের কাছে গাড়ি করে পাঠিয়ে দিচ্ছে। তাই এখন মধ্যস্বত্বভোগীদের কাছে আমাদের জিম্মি হতে হয় না। মোবাইলের মাধ্যমে সরাসরি ঢাকার কাওরান বাজা কিংবা সিলেটের বন্দর বাজার দর জানা যায়। হাওরাঞ্চলের কৃষকের প্রযুক্তি ব্যবহারের কারণে ন্যায্য মূল্য পাচ্ছে পাশাপাশি অতিরিক্ত খরচ থেকে রক্ষা পাচ্ছে কৃষক। তাই কৃষকের খরচ কম হওয়ায় লাভবান হচ্ছেন তারা।
মরিচ পাইকার জাহাঙ্গীর আলম জানান, মোবাইল প্রযুক্তির মাধ্যমে প্রতিদিন ৫ থেকে ৬ লাখ টাকার কাঁচামরিচ ট্রাকে করে ঢাকা কিংবা সিলেটে পাঠাচ্ছি। দিনে মরিচ কিনে বস্তায় প্যাকেট করে ট্রাকে সরাসরি পাঠিয়ে দিচ্ছি।
এ বিষয়ে উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মো. আলাউদ্দিন জানান, কৃষকরা যাতে ন্যায্য মূল্য পায় সে জন্য আমাদের উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তাগণ সরাসরি ঢাকা কিংবা সিলেটের আড়ৎদারদের সাথে কৃষকদের যোগাযোগ করে দিচ্ছেন। প্রতিটি ইউনিয়নের কৃষকদের সাথে সার্বক্ষণিক যোগাযোগ করে প্রতিদিন ঢাকা ও সিলেটের মরিচের দাম জানিয়ে দেওয়া হচ্ছে। এতে করে কৃষকেরা মধ্যস্বত্বভোগীদের হাত থেকে রক্ষা পাচ্ছেন এবং লাভবান হচ্ছেন।

About The Author

Related posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *