1. newsjibon@gmail.com : adminsp :
তাহিরপুরে জন্ম নিবন্ধনে জনমের ভোগান্তি - সুনামগঞ্জ প্রতিদিন
সোমবার, ২২ এপ্রিল ২০২৪, ১১:৫৯ পূর্বাহ্ন

তাহিরপুরে জন্ম নিবন্ধনে জনমের ভোগান্তি

  • বৃহস্পতিবার, ১৩ এপ্রিল, ২০২৩
  • ১৫৮ বার পঠিত
Spread the love

তাহিরপুর প্রতিনিধি: ডিজিটাল পদ্ধতিতে নিবন্ধন হওয়ায় বর্তমানে সার্ভার ত্রুটির অজুহাতে চরম ভোগান্তি শিকার হচ্ছেন সুনামগঞ্জের তাহিরপুর উপজেলার ৬টি ইউনিয়নে তিন লাখ মানুষ। এই সব ইউনিয়ন পরিষদে প্রতিদিন গিয়েও পাচ্ছেন না জন্ম ও মৃত্যু নিবন্ধন সনদ।
ইউনিয়ন গুলো হল,বালিজুরী,বাদাঘাট,বড়দল দক্ষিণ,বড়দল উত্তর,শ্রীপুর উত্তর,শ্রীপুর দক্ষিণ ইউনিয়ন পরিষদে গিয়ে মৃত্যু ও জন্ম নিবন্ধন করতে গিয়ে জনমের ভোগান্তির শিকার হচ্ছেন তিন লাখ মানুষ। ফলে চরম ক্ষোব বিরাজ করছে। সর্বশেষ ধাপে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনের পর থেকে এই সমস্যা সৃষ্টি হয়েছে।
খোঁজ নিয়ে জানাযায়,প্রতিটি উপজেলার জন্ম-মৃত্যু নিবন্ধক থাকেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা। অপরদিকে ইউনিয়ন পরিষদের নিবন্ধক থাকেন ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান।
স্ব-স্ব ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানের একটি আইডি এবং পাসওয়ার্ড দ্বারা প্রতিটি ইউনিয়ন পরিষদের জন্ম মৃত্যু নিবন্ধন করা হয়। শেষ ধাপের নির্বাচনে অনেক ইউপিতে চেয়ারম্যান পরিবর্তন হলেও সার্ভারে রয়ে গেছে পুরাতন চেয়ারম্যানদের আইডি,পাসওয়ার্ড ফলে নতুন চেয়ারম্যানগণ নতুন করে জন্ম-মৃত্যু নিবন্ধন দিতে পারছেন না।
উত্তর বড়দল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মাসুক মিয়া জানান,জন্ম নিবন্ধন কার্ডের জরুরি প্রয়োজনে নাগরিকদের ছেলে মেয়েদের স্কুলে ভর্তি,জমি ক্রয়-বিক্রয়,বিয়ে,স্কুলে ভর্তি,পাসপোর্ট, গাড়ির নিবন্ধন,আইডি কার্ড,জমি রেজিস্ট্রেশন,মোবাইল সিম ক্রয় করাসহ নানা কাজে প্রয়োজন হয়। এজন্য সন্তান জন্ম নেওয়ার পরপরই স্থানীয় প্রশাসনে জন্ম নিবন্ধন নিতে দৌড়ঝাঁপ শুরু করে মানুষ। এখন সার্ভার বন্ধ থাকা কাউকেই জন্মনিবন্ধন করে দিতে পারছি না।
উত্তর শ্রীপুর ইউনিয়নের পলাশ মিয়া বলেন,জমির নামজারি করতে হলে জন্ম নিবন্ধন প্রয়োজন এখন জন্মনিবন্ধন না থাকায় চরম বিপাকে পড়েছি। গত এক বছর ধরে আসা-যাওয়া করছি আর দায়িত্বশীলরা শুধু বলছেন সার্ভারে সমস্যা। কবে সমাধান হবে আল্লাহ ভাল জানে।
দক্ষিণ শ্রীপুর ইউনিয়নের আমিরুল মিয়া বলেন,ছেলেকে স্কুলে ভর্তি জন্ম নিবন্ধনের প্রয়োজন কিন্তু গত এক বছর ধরেই শুধু আজ না কাল ঠিক হবে বলছেন ইউনিয়ন পরিষদের সংশ্লিষ্টরা। জন্ম নিবন্ধন করতে গিয়ে জনমের ভোগান্তিতে পড়েছি।
দক্ষিণ শ্রীপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আলী আহমদ মোরাদ জানান,জন্ম মৃত্যু নিবন্ধন আইন,২০০৪এর ৮ধারা অনুযায়ী শিশুর জন্মের ৪৫দিনের মধ্যে জন্ম নিবন্ধন এবং কোন ব্যক্তির মৃত্যুর ৪৫ দিনের মধ্যে মৃত্যু নিবন্ধন করতে হয়।
জন্ম-মৃত্যু নিবন্ধন করতে প্রতিদিন আমার ইউনিয়নের দুর দুরান্ত এলাকা থেকে লোকজন আসছে কিন্তু জন্মনিবন্ধন করে দিতে পারছি না সার্ভার বন্ধ থাকায়।
বালিজুড়ি ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান আজাদ হোসাইন জানান,দীর্ঘদিন ধরে জন্ম-মৃত্যু নিবন্ধন জটিলতার বিষয়টি সমাধানের জন্য জেলা প্রশাসকের বরাবরে লিখিত আবেদন করা হয়েছে। কিন্তু এখনও এর কোন সমাধান হয়নি।
তাহিরপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সুপ্রভাত চাকমা বলেন,এ বিষয়টি ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে জানানো হয়েছে। দ্রুত সময়ের মধ্যে এর সমাধান হয়ে যাবে।


Spread the love
এই বিভাগের আরো খবর

ওয়েবসাইট ডিজাইন প্রযুক্তি সহায়তায়: জুনায়েদ চৌধুরী জীবন

© All rights reserved © সুনামগঞ্জ প্রতিদিন
Theme Customized BY LatestNews
error: Content is protected !!